কাশ্মিরে ১৩ হাজার শিশু-কিশোরের খুঁজ নেই!!!

0
11

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, শাপলা টিভিঃ
ভারত নিয়ন্ত্রিত জম্মু-কাশ্মিরের বিশেষ সুবিধা ৩৭০ ধারা বাতিলের পর সেখানকার প্রায় ১৩ হাজার নাবালক শিশু-কিশোর নিখোঁজ রয়েছে বলে দাবি করেছে দেশটির কয়েকটি প্রগতিশীল মহিলা সংগঠনের সদস্যরা। সম্প্রতি চাঞ্চল্যকর এ তথ্যটি ভারত ও পাকিস্তানের কয়েকটি সংবাদমধ্যমে প্রকাশ করা হয়। খবর আনন্দবাজার।

এদিকে, জাতিসংঘ অধিবেশনে ভাষণদানকালে পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান দাবী করেন- কাশ্মীরের ৩৭ হাজার যুবকদেরকে ভারতীয় সেনা কর্তৃক গ্রেফতার করা হয়েছে, যাদের পরিবার আদৌও জানে না কোথায় তাদেরকে রাখা হয়েছে।

কাশ্মীরের বিশিষ্ট সমাজকর্মী ও বামপন্থী আন্দোলনের নেত্রী অ্যানি রাজা এবং যোজনা কমিশনের সাবেক সদস্য সঈদা হামিদ বলেন, ভারত সরকার কর্তৃক জম্মু-কাশ্মিরের স্বায়ত্ত্বশাসন কেড়ে নেওয়ার ফলে সেখানকার বাসিন্দারা সব বিভেদ ভুলে একজোট হয়েছে। সরকারের এমন পদক্ষেপের বিরুদ্ধে ছোট থেকে বড় সকলেই কথা বলছে। কাশ্মিরিদের অভিমত, বিজেপি সরকার এমন সিদ্ধান্তের মাধ্যমে নিজেদের কফিনে নিজেরাই শেষ পেরেকটি মেরে দিয়েছে।

গত সপ্তাহে অ্যানি রাজা অভিযোগ করেন, কাশ্মিরের বেশিরভাগ গ্রামের অধিকাংশ বাড়িতেই ছোট ছোট শিশু-কিশোর নিখোঁজ রয়েছে। সেখানকার বাসিন্দাদের অভিযোগ, সেনাবাহিনী ও আধা সেনা বাহিনীর সদস্যরা এসব নাবালকদের ধরে নিয়ে গেছে। অভিভাবকরা নিখোঁজ শিশুদের খোঁজ নিতে গেলে বলা হচ্ছে, রাজ্যের জেলগুলোতে খোঁজ নিতে।

অ্যানি রাজা আরো বলেন, রাজ্যের জেলগুলোতে গেলে দেখা যাচ্ছে, জেলের বাহিরের দেয়ালে আটকদের তালিকা দেয়া আছে। সেই তালিকায় অগণিত কাশ্মিরিদের পাশাপাশি নাবালক শিশু কিশোরদেরও নাম রয়েছে।

কাশ্মিরের বর্তমান পরিস্থিতি সম্পর্কে যোজনা কমিশনের সাবেক সদস্য সঈদা হামিদ বলেন, তিনি ছোট থেকেই এ রাজ্যটিতে বড় হয়েছেন। কাশ্মিরে বর্তমান পরিস্থিতি বড় বেশি অবসাদগ্রস্ত। সমাজের বিভিন্ন স্তরের মানুষের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, কাশ্মিরের বিশেষ সুবিধা বাতিলের পর উপত্যকাটি থেকে প্রায় ১৩ হাজার নাবালক নিখোঁজ হয়েছে।

উল্লেখ্য, চলতি মাসের ৫ আগস্ট ভারত নিয়ন্ত্রিত জম্মু-কাশ্মিরের বিশেষ সুবিধা ৩৭০ ধারা সংবিধান থেকে বাতিল করে বিজেপি সরকার। ফলে কার্যত গৃহবন্দি অবস্থায় রয়েছেন কাশ্মীরবাসী।

LEAVE A REPLY